Ad Space 100*120
Ad Space 100*120

লক্ষ্মীপুরে আওয়ামী লীগ-বিএনপি সংঘর্ষ, আহত ১৫


প্রকাশের সময় : ১১ মাস আগে
লক্ষ্মীপুরে আওয়ামী লীগ-বিএনপি সংঘর্ষ, আহত ১৫

লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলায় আওয়ামী লীগ ও বিএনপি নেতাকর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষ ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয়পক্ষের অন্তত ১৫ নেতাকর্মী আহত হয়েছেন।

শনিবার (৮ এপ্রিল) বিকেল ৪টার দিকে রামগঞ্জ পৌরসভার নন্দপুর এলাকায় এরশাদ হোসেন সড়কে এ ঘটনা ঘটে। এসময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ছয় রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুঁড়েছে পুলিশ।

দলীয় সূত্র ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ১০ দফা দাবিতে বিএনপি নেতাকর্মীরা পূর্বঘোষিত অবস্থান কর্মসূচির বাস্তবায়নের লক্ষ্যে ঘটনাস্থলে জড়ো হন। এসময় হঠাৎ করে আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা এসে ইট-পাটকেল ছোঁড়েন। একপর্যায়ে দুইপক্ষের লোকজন সংঘর্ষ ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ায় জড়িয়ে পড়েন। এতে ছাত্রলীগ নেতা শেখ রাসেল, ফরিদ, রিয়াদ হোসেন, মো. মিরাজ, সোহেল, সবুজ হোসেন, বাবুসহ আওয়ামী লীগের কয়েকজন কর্মী এবং বিএনপিকর্মী আবদুর রহমান ও ফারুক হোসেনসহ উভয়পক্ষের ১৫ নেতাকর্মী আহত হন। তারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রবিউল জামান অপু মাল বলেন, আমাদের ইফতার বিতরণ কর্মসূচি ছিল। সেখানে যাওয়ার পথে বিএনপি নেতাকর্মীরা আমাদের ওপর হামলা চালায়। এতে আমাদের ১০ নেতাকর্মী আহত হয়।

রামগঞ্জ পৌর বিএনপির আহ্বায়ক কামরুল হোসেন বলেন, বিনা কারণে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা আমাদের ওপর হামলা চালিয়েছে। এতে কয়েকজন আহত হয়। পরে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছে।

কেন্দ্রীয় বিএনপির প্রচার সম্পাদক ও লক্ষ্মীপুর জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি বলেন, ঘটনাটি শুনেছি। সামনে আরেকটি নির্বাচনের সময় এসেছে। এজন্য তারা পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে মাঠে নেমেছে। আওয়ামী লীগ পরিকল্পিতভাবে রামগঞ্জে হামলা চালিয়েছে। এ হামলার নিন্দা জানাচ্ছি।

রামগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এমদাদুল হক বলেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ছয় রাউন্ড ফাঁকা গুলি করা হয়েছে। এখন পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। এ ঘটনায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।